30 November, 2021 (Tuesday)
শিরোনাম

কুড়িলের অবরোধে প্রগতি সরণিতে ভোগান্তি

প্রকাশিতঃ 24-11-2021


প্রগতি সরণিতে যানজট/ ছবি : আবির্ভাব নিউজ


নিজস্ব প্রতিবেদক : কুড়িল বিশ্বরোডে পোশাক শ্রমিকদের অবরোধের কারণে রাজধানীর প্রগতি সরণিতে তিন ঘণ্টার বেশি সময় ধরে তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়েছিল। 

বুধবার দুপুর থেকে বিকেল পর্যন্ত এই সড়কে গাড়িগুলো অনেকটাই স্থবির হয়েছিল। এতে গন্তব্যমুখী যাত্রীরা চরম ভোগান্তিতে পড়েন। সরেজমিনে দেখা গেছে, বাড্ডা থেকে কুড়িল পর্যন্ত বাসগুলো দাঁড়িয়ে রয়েছে। সড়কের দুই পাশেই গণপরিবহনের পাশাপাশি ছোট গাড়ি ও রিকশাও জটে রয়েছে। যাত্রীরা বিকল্প পথ ব্যবহার করছেন। অনেকে বাস থেকে নেমে হেঁটে গন্তব্যে যাচ্ছেন।

ভুক্তভোগীরা জানান, এই সড়কে প্রতিদিনই তীব্র যানজট সৃষ্টি হয়। এর ওপর কুড়িলে শ্রমিকদের অবরোধ। এ কারণে যানজটের সৃষ্টি হয়েছে। আজ ভোগান্তি কয়েকগুণ বেশি। বাড্ডা আলাতুনেচ্ছা স্কুলে সন্তানের পরীক্ষা শেষ করে মধ্য বাড্ডা সড়কে আসা রেহেনা খাতুন নামে এক অভিভাবক বলেন, সকালে যখন মেয়েকে নিয়ে স্কুলে যাচ্ছিলাম, এই পথে তখনও তীব্র যানজট ছিল। এখন ফেরার পথেও দেখছি যানজট। এই সড়কে যানজট প্রতিদিনই দেখা যায়। আমরা এই সড়কে সাধারণত  হেঁটেই চলাচল করি।

দুপুরে রাজধানীর যাত্রাবাড়ী এলাকা থেকে আসা রাইদা পরিবহনের একটি বাস নতুন বাজার এলাকার দাঁড়ালে কথা হয় এর চালক হামিদুর রহমানের সঙ্গে। তিনি বলেন, মালিবাগ রেলগেট থেকে রামপুরা ব্রিজ হয়ে মেরুল বাড্ডা, মধ্য বাড্ডা, উত্তর বাড্ডা,
শাহজাদপুর পুরো সড়কেই অতিরিক্ত যানজট লেগে আছে। তিনি বলেন, এই সড়কে সব যানবাহন ধীরগতিতে চলছে। কোথাও কোথাও সিগন্যালে দীর্ঘ সময় বসে থাকতে হচ্ছে। আজ একটু যানজট বেশি। তবে প্রতিদিনই এই সড়কের দুই পাশেই যানজট সৃষ্টি হয়। বৈশাখী বাসের যাত্রী সাজ্জাদ হোসেন শাহজাদপুরে বাস থেকে নেমে নতুন বাজারের দিকে হেঁটে যাচ্ছিলেন। এ সময় তিনি বলেন, বাড্ডা লিংকরোড থেকে শাহজাদপুর পর্যন্ত পুরো সড়কেই যানজট ছিল। গাড়ি চলতেই পারছে না, সামনে দিকে আরও যানজট দেখা যাচ্ছে। তাই বাস থেকে নেমে হেঁটেই যাচ্ছি।  

সড়কে দায়িত্ব পালন করা ট্রাফিক পুলিশের এক সার্জেন্ট নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, এ সড়কে প্রতিদিন কিছুটা যানজট হচ্ছে এটা ঠিক। তবে দুপুরের দিকে যানজট কমে যায়। আজ শুনেছি কুড়িলে শ্রমিকরা সড়কে নেমেছেন। এ কারণেই ভোগান্তি হচ্ছে।  

তিনি বলেন, প্রতিদিনকার যানজটের মূল কারণ হলো, এই সড়কে রিকশা চলাচল করে। রিকশা যানবাহনগুলোর সাধারণ গতি নষ্ট করে। ফলে যানজটের সৃষ্টি হয়। এছাড়া সড়কের বিভিন্ন পয়েন্ট দিয়ে পথচারীরা এপার থেকে ওপারে আসা যাওয়া করেন। এই কারণেও যানবাহনগুলোর ধীরগতি দেখা দেয়। এতে যানজটের সৃষ্টি হয়।

রাজধানীর কুড়িল বিশ্বরোড সড়কে অবরোধ কর্মসূচি পালন করেন ওয়েমার্ট অ্যাপারেন্স লিমিটেডের শ্রমিকরা। তারা জানান, মার্কেন্টাইল ব্যাংক ওয়েমার্ট অ্যাপরেন্স গার্মেন্টসের মালিকের টাকা না ছাড়ায় গত তিন মাস ধরে তাদের বেতন হচ্ছে না। বেতন না হওয়ায় পরিবার পরিজন নিয়ে তারা কষ্টে আছেন। এজন্য রাস্তায় নামেন তারা।




Social Media

মন্তব্য করুন:





সর্বশেষ খবর





সর্বাধিক পঠিত



এই বিভাগের আরও খবর

আরও সংবাদ